You cannot copy content of this page

সপরিবারে দেখার মত ছবি নেহাল পরিচালিত ও হিরণ অভিনীত “জিও জামাই”

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, কলকাতা, ১১ই জানুয়ারি ২০২০ : জ্যোতি প্রোডাকশন প্রযোজিত এবং জয়দেব মন্ডল নিবেদিত “জিও জামাই”-এর প্রিমিয়ার শো হয়ে গেল সাউথ সিটি আইনক্সে। নেহাল দত্ত নির্দেশিত “জিও জামাই” প্রিমিয়ারে এসে বলেন আজ খুব খারাপ লাগছে যে মাত্র একটা হল ছাড়া কলকাতায় আর কোন হলে ছবি মুক্তি পেল না।ছবিতে সুর দিয়েছেন দেব সেন এবং ছবিতে তিনটে গান গেয়েছেন আরমান মল্লিক, দেবাঞ্জলি জোশি, শির্ষা রক্ষিত, পালক মুচ্ছাল, রায়েন রায় ও গীতিকার রিভো, প্রিয় চ্যাটার্জি।

ছবিটা যদিও শুরু হয় একটা সিরিয়াস নোট দিয়ে কিন্তু পরবর্তীতে বেশ মজার একটা প্রেক্ষাপট তৈরি হয়।দিয়া ভাইজাকে জ্যোতিরানি দেবীর সংস্থায় কাজ করছে যা সম্পূর্ণ মহিলা পরিচালিত। হঠাৎ সংস্থায় জ্যোতিরানি-র কন্যা প্রেমারতি কিছু পরিবর্তন আনতে চাওয়ায় এক পুরুষ নিয়োগ করা হয় নাম আদিত্য রায়। এই আদিত্য রায় ইংল্যান্ডে তাঁর কাকার কাছে মানুষ কারণ খুব ছোটবেলায় তাঁর বাবা-মায়ের মধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। আদি এখানে কাজ করতে করতে তাঁর ভাল লাগে খুব হাসিখুশি ও যুবতী দিয়াকে। দিয়ার ব্যবহার আদিকে মনে করতে বাধ্য করেছে যে দিয়া কোন এক সুখি পরিবার থেকে এসেছে। এটা আদির ভাবনাকে আরও বিশ্বস্ত করে যখন দিয়ার বাবা-মায়ের ২৫তম বিবাহ বার্ষিকী হয়।

কিন্তু এই সম্পর্কের মাঝে ভাগ্যের পরিহাস ছিল মারাত্মক যা থেকে শুরু হয় তাদের সম্পর্কের ফাটল। এই সমস্যা আরও বড় আকার ধারণ করে যখন আদির কাকা ভাইজাকে আসে। কিন্তু আদি ও দিয়া তাদের সম্পর্কের স্বার্থে নিজেদের মধ্যে অভিনয় করতে থাকে। এই অভিনয় করতে গিয়ে শুরু হয় কমেডি যার পরিনামে দিয়া-র বাবা-মায়ের মধ্যে যে দুরত্ব তৈরি হয়েছিল তার অবসান ঘটে। ছবিতে অভিনয় করেছে হিরণ, ঈশানী ঘোষ, রজতাভ দত্ত, বিশ্বজিত চক্রবর্তী, তুলিকা বসু, সুমিত গাঙ্গুলি, মৌমিতা চক্রবর্তী সহ অনেকে।ছবির রচনা নেহাল দত্ত।প্রিমিয়ারে উপস্থিত ছিলেন নেহাল দত্ত, হিরণ চ্যাটার্জি, তুলিকা বসু, ঈশানী ঘোষ, রজতাভ দত্ত, সুমা দে, রায়ান রায়, শির্ষা রক্ষিত, শুভদীপ চক্রবর্তী, পূর্বাশা দেবনাথ সহ অনেকে। প্রচারে সুদীপ যাদব। ছবি রাজীব মুখার্জি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *