You cannot copy content of this page

মন্ত্রী শশী পাঁজার উদ্যোগে ছোট বাজেটের পুজো সংগঠনদের সেরা পুরস্কার ঘোষণা “উৎকর্ষিণী সম্মান ২০১৯”

নিজস্ব প্রতিনিধি, এবিপিতকমা, কলকাতা, ২৪শে সেপ্টেম্বর ২০১৯ : সত্যি কথা বলতে কি বাংলায় যেভাবে দুর্গাপুজো জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে তাতে ছোট বাজেটের পুজোর চাহিদা কমে গেছে। তবুও সব এলাকায় প্রচুর ছোট পুজো হয়।যে পুজোগুলো শুধুমাত্র পাড়ার ঐতিহ্যকে ধরে রাখতে পুজো করে তবে তা নিষ্ঠা ভরে।তাদের কেউ কোন পুরস্কার দেয় না আর তারাও সেরকম পুরস্কার পাওয়ার আশাও করে না। কিন্তু এবার শ্যাম্পপুকুর বিধানসভা কেন্দ্রের মধ্য ও ছোট বাজেটের পূজা কমিটির প্রচেষ্টাকে সম্মান জানাতে ডঃ শশী পাঁজা -র এক অনন্য উদ্যোগ “উৎকর্ষিণী সম্মান ২০১৯” এর সংবাদ সম্মেলন কুমোরটুলি তে হয়ে গেল সম্প্রতি।এর ফলে ছোট পুজোগুলো বেশ উৎসাহিত হবে।এই পুরস্কারের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা করলেন মন্ত্রী ডাঃ শশী পাঁজা, উপস্থিত ছিলেন অভিনেত্রী পায়েল মুখার্জি সহ অনেকে।

পূজা কমিটিগুলিকে ছয়টি শিরোনামে পুরষ্কার দেওয়া হবে। প্রত্যেকটি মধ্য ও ছোট বাজেটের পুজো এই প্রতিযোগিতার অধীনে থাকবে। সেরা পুজোর জন্য ১২-টি পুরষ্কার এবং একটি বিশেষ পুরষ্কার থাকবে সেরার সেরা।
বিভাগগুলি নিম্নরূপ : –

• সেরা প্রতিমা – সেরা মৃৎ শিল্পী পর্যভূষিত হবে এই সম্মানে
• পরিবেশ বান্ধব দুর্গোৎসব – পরিবেশ রক্ষায় অঙ্গীকারবদ্ধ পুজোকে সম্মানিত করা হবে
• হাত বাড়ালেই বন্ধু – যে সকল পুজো কমিটি সম্বলহীন মানুষের পাশে দাঁড়াতে অঙ্গীকারবদ্ধ তাদের সম্মানিত করা হবে
• পুরোহিট পুরোহিত – শ্রেষ্ঠ পুরোহিত পর্যভূষিত হবে এই সম্মানে
• নারী শক্তি সম্মান – অঞ্চলের মহিলাদেরদ্বারা আয়োজিত শ্রেষ্ট পুজো সম্মানিত হবে এই পর্বে
• সৃজনশীল পুজো ভাবনা – পুজোর সেরা চিন্তা ভাবনা পুরস্কৃত হবে এই পর্বে

এগুলি ছাড়াও যে কোনও একটি পূজা কমিটি ” সেরার সেরা ” উপাধিতে ভূষিত হবে।
ডাঃ শশী পাঁজা -র এই উদ্যোগ মধ্য ও স্বল্প বাজেটের পূজা কমিটিগুলির প্রচেষ্টাকে স্বীকৃতি দেওয়া। কিন্তু বিখ্যাত- উচ্চ-বাজেটের পুজো কমিটি গুলোকেও এই উদ্যোগে সামিল করতে
ড: পাঁজা জানান, বড় পুজো গুলোর কর্ম কর্তারাই পুজোর পর এক অনুষ্ঠানে এই পুরষ্কার গুলোও তুলে দেবেন *”উৎকর্ষিণী সম্মান ২০১৯”*-র প্রাপকদের হাতে।
এই দিন বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন টলি অভিনেত্রী পায়েল মুখার্জি।
নিঃসন্দেহে ডঃ শশী পাঁজা-র এই উদ্যোগ উৎসবের সময় এক সাথে থাকার ঐক্য মন্ত্রে অনুপ্রেরণা দেবে সকলকে ও আরও সুন্দর করে তুলবে এই প্রানের উৎসবকে। প্রচারে অ্যাডভার্ব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *