You cannot copy content of this page

ভারতে হসপিটাল 3D-প্রিন্টিং ল্যাব প্রতিষ্ঠা করতে Anatomiz3D Medtech-এর সাথে জুটি বাঁধল অ্যাপোলো হসপিটাল

বিশেষ প্রতিনিধি, এবিপিতকমা, কলকাতা, ১৮ই ফেব্রুয়ারি ২০২১ : এশিয়ার অগ্রগণ্য সামগ্রিক চিকিৎসা পরিষেবা প্রদানকারী অ্যাপোলো হসপিটালস গ্রুপ আর ডিজাইন, 3D প্রিন্টিং, র‍্যাপিড প্রোটোটাইপিং ও বায়োপ্রিন্টিং প্রযুক্তির ক্ষেত্রে চিকিৎসা শিল্পকে ‘রোগীকেন্দ্রিক’ সমাধান প্রদানকারী Anatomiz3D Medtech প্রাইভেট লিমিটেড আজ জটিল ইমপ্ল্যান্টের ডিজাইন ও প্রিন্টিং-এর ক্ষেত্রে সহযোগিতা করার কথা ঘোষণা করল। অ্যাপোলো হসপিটালস আর Anatomiz3D ভারতে হসপিটাল 3D-প্রিন্টিং ল্যাব প্রতিষ্ঠা করার পথনির্দেশকারী উদ্যোগে নেতৃত্ব দিচ্ছে। এই উদ্যোগ জটিল কেসগুলোর বেলায় ডাক্তারদের ইমপ্ল্যান্টগুলোর কল্পনা করতে এবং প্রিন্ট করতে সুযোগ দেবে। এই ধরনের প্রথম ল্যাব লঞ্চ করা হবে অ্যাপোলো হেলথ সিটি, জুবিলি হিলস, হায়দরাবাদে।

ডাঃ প্রতাপ সি রেড্ডি, চেয়ারম্যান, অ্যাপোলো হসপিটালস গ্রুপ, বলেন, “আরো একবার রোগীদের স্বার্থে সাম্প্রতিকতম মেডিকাল প্রযুক্তি নিয়ে আসায় পথপ্রদর্শক হতে পেরে আমরা গর্বিত। এ কথা বললে ভুল হবে না যে হসপিটাল 3D-প্রিন্টিং ল্যাব তৈরি হল মানে চিকিৎসা ব্যবস্থার ভবিষ্যৎ আমাদের হাতে এসে পড়ল। ব্যক্তিনির্দিষ্ট চিকিৎসাই এখন চিকিৎসার মূলমন্ত্র। জিনোমিক্স আর প্রিসিশন মেডিসিনের উন্নতি ব্যক্তিনির্দিষ্ট প্রতিরোধ ও চিকিৎসাকে চালিত করছে। টার্গেটেড থেরাপির জন্য বিশেষ মেডিসিন থেকে শুরু করে ব্যক্তিনির্দিষ্ট ইমপ্ল্যান্ট ও প্রসথেটিক্স — সব ক্ষেত্রেই একটা দ্রুত, যথাযথ এবং সাশ্রয়কারী সমাধান জুগিয়ে 3D-প্রিন্টিং প্রযুক্তি চিকিৎসার পরিবেশের রূপান্তর ঘটাচ্ছে এবং চিকিৎসা ব্যবস্থাকে পরবর্তী স্তরে উন্নীত করছে। চিকিৎসা ব্যবস্থার বিবর্তনে 3D-প্রিন্টিং একটা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।”

হসপিটাল 3D-প্রিন্টিং ল্যাবগুলো অস্ত্রোপচারের আগের পরিকল্পনা ও শিক্ষার জন্য অ্যানাটমিকাল মডেল তৈরি করে এবং রোগীনির্দিষ্ট কাটিং ও ড্রিলিং গাইড, ব্যক্তিনির্দিষ্ট ইমপ্ল্যান্ট ও ইমপ্ল্যান্ট মোল্ড তৈরি করে উন্নততর চিকিৎসার জন্য মেডিকাল 3D-প্রিন্টিং পরিষেবা জোগাবে।

সঙ্গীতা রেড্ডি, জয়েন্ট ম্যানেজিং ডিরেক্টর, অ্যাপোলো হসপিটালস গ্রুপ, বললেন “আজকাল চিকিৎসার বিস্তীর্ণ ক্ষেত্রে 3D-প্রিন্টিং ব্যবহার করা হচ্ছে এবং তার ফলে এমনভাবে জীবন

বাঁচানোর এবং জীবনের উন্নতি ঘটানো সম্ভব হচ্ছে, যা কখনো কল্পনা করা যেত না। চিকিৎসা ক্ষেত্রে 3D-প্রিন্টিং-এর নানাবিধ ব্যবহার রয়েছে। নিজেদের হাসপাতালগুলোতে 3D-প্রিন্টিং ল্যাব হওয়ায় রোগীদের যত্ন এবং চিকিৎসার পরিকল্পনা আরো উন্নত করা যাবে।

3D-প্রিন্টিং প্রযুক্তির উন্নতির কারণে এখন ব্যক্তিনির্দিষ্ট, আরো হালকা, আরো শক্তপোক্ত, আরো সুরক্ষিত এবং আরো বেশি কর্মঠ প্রোডাক্ট আগের চেয়ে কম সময়ে এবং কম খরচে পাওয়া যাচ্ছে। ফলে ডাক্তাররা রোগীদের আরো ভাল করে বুঝতে পারেন এবং প্রোডাক্ট নির্দিষ্ট রোগীর শারীরিক গঠনের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে ডিজাইন করা হয় বলে তাঁরাও বেশি স্বচ্ছন্দ বোধ করেন। ইমপ্ল্যান্ট করার জিনিসগুলো এবং অস্ত্রোপচারের যন্ত্রপাতিগুলো প্রত্যেক রোগীর জন্য নির্দিষ্ট করে ডিজাইন করা হয় বলে অস্ত্রোপচারের খুঁটিনাটি এবং খরচ যথাসম্ভব কমানো যাবে। মেরুদণ্ডের অস্ত্রোপচারের মত ব্যাপারগুলোতে ব্যক্তিনির্দিষ্ট 3D-প্রিন্টিং ব্যক্তিনির্দিষ্ট মেডিসিনের উপকারিতা বাড়িয়ে দেবে এবং অস্ত্রোপচারের আগের পরিকল্পনাকে আরো সুনির্দিষ্ট করবে। ফলে অস্ত্রোপচারে কম সময় লাগবে এবং রোগীর ঝুঁকিও কমবে। 3D-প্রিন্টিং নতুন প্রজন্মের শল্য চিকিৎসকদের পারদর্শিতা বাড়াতেও সাহায্য করবে, কারণ এতে তাঁরা রোগটাকে আরো ভাল করে বুঝতে পারবেন। সবে তো শুরু। যত দিন যাবে তত আমরা চিকিৎসা ব্যবস্থায় 3D-প্রিন্টিং-এর সম্পূর্ণ সম্ভাবনার পূর্তি দেখতে পাব।”

ফিরোজা কোঠারি, কো-ফাউন্ডার অ্যান্ড সিটিও Anatomiz3D, বললেন “সেই ২০১৫ থেকে Anatomiz3D চিকিৎসা ব্যবস্থাকে ব্যক্তিনির্দিষ্ট করে তোলায় 3D-প্রিন্টিং-এর সম্ভাবনায় বিশ্বাস করেছে এবং এই স্বপ্নকে বাস্তবে পরিণত করার দিকে এগিয়েছে। অ্যাপোলো হসপিটালসের সাথে আমাদের স্ট্র্যাটেজিক গাঁটছড়া বড় মাত্রায় এই কাজটা করার পথে জোরালো পদক্ষেপ। অ্যাপোলো হসপিটালস এক প্রগতিশীল সংস্থা এবং রোগীদের জন্য উপকারী নতুন প্রযুক্তি দ্রুত গ্রহণ করার ক্ষেত্রে পথপ্রদর্শক। বহু বছর ধরে আমরা অ্যাপোলো হসপিটালসের একাধিক চিকিৎসকের সাথে কাজ করার সুযোগ পেয়েছি। তাঁদের হাসপাতালে সরাসরি তাঁদের হাতে এই প্রযুক্তি তুলে দেওয়া আমাদের জন্য আনন্দের ও গর্বের বিষয়। তাঁদের কাজে এই প্রযুক্তির ব্যবহার এবং গবেষণা ও উন্নয়নে একে খুঁটিয়ে দেখা হবে — এ খুবই গর্বের। অ্যাপোলো হসপিটালস আর Anatomiz3D-র লক্ষ্য রোগীদের জীবনের মান বাড়াতে একত্রে সহজলভ্য ব্যক্তিনির্দিষ্ট মেডিকাল ডিভাইস বানানো।”

Anatomiz3D এমন প্রযুক্তি ব্যবহার করে, যার কার্যকারিতা ১০০০-এর বেশি কেসে প্রমাণ হয়েছে। হসপিটাল 3D ল্যাবে অ্যাপোলো হসপিটালসের মেডিকাল ও সার্জিকাল প্রতিভাদের সাথে কাজ করবে বায়োমেডিকাল ইঞ্জিনিয়ার, মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ার, এ এম ইঞ্জিনিয়ার, 3D ডিজাইনারদের এক মাল্টি-ডিসিপ্লিনারি দল। ল্যাব এমন অ্যানাটমিকাল মডেল তৈরি করবে যা রোগীর অ্যানাটমির বাস্তব আকারের রেপ্লিকা। এই রেপ্লিকা তৈরি হবে CT/MRI স্ক্যানের 3D মডেল তৈরি করে। এই মডেলগুলো একাধিক বস্তু, রং, অস্বচ্ছতা এবং কাঠিন্য রেখে তৈরি করা যায়। ফলে অস্ত্রোপচারের পরিকল্পনা করার

জন্য এবং রোগীকে বোঝানোর জন্য উন্নত 3D চেহারা তৈরি করা যায়। এই মডেল দিয়ে এমন ইমপ্ল্যান্ট আর মোল্ড তৈরি করা যায়, যা রোগীর শরীরের ত্রুটিপূর্ণ অংশটাতে নিখুঁতভাবে বসে যাওয়ার জন্য ডিজাইন করা। ফলে সৌন্দর্য এবং কার্যকারিতা — দুটোই নিখুঁতভাবে বজায় থাকে। বায়োকমপ্যাটিবল মেটিরিয়ালে প্রিন্ট করা 3D মডেল, রোগীর হাড়ের আগে থেকে চিহ্নিত করে রাখা জায়গায় ফিট করে এমন সার্জিকাল গাইড ও যন্ত্রপাতি সার্জিকাল করাত বা ড্রিলকে আগে থেকে নির্দিষ্ট দিকে চালিত করে। তাই অস্ত্রোপচারে যথাযথ ফল হয়। প্রচারে : অ্যাড ফাক্টর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *