You cannot copy content of this page

‘চিকিৎসক দিবস’ উপলক্ষে ১ জুলাই গোটা রাজ্যে ছুটি ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, কলকাতা, ১লা জুলাই ২০২০ : ‘চিকিৎসক দিবস’ উপলক্ষে ১ জুলাই গোটা রাজ্যে ছুটি। সোমবার নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে এই ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কোভিড পরিস্থিতিতে যে ভাবে চিকিৎসক, নার্স, প্যারামেডিক্যাল স্টাফরা জীবন বাজি রেখে লড়াই করছেন তাঁদের স্যালুট জানাতেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। ১ জুলাই চিকিৎসক দিবস। বাংলার প্রথম মুখ্যমন্ত্রী ডাক্তার বিধানচন্দ্র রায়ের জন্মদিন। মমতা এদিন বলেন, ‘আমরা সমস্ত ফ্রন্টলাইন ওয়ার্কারদের স্যালুট জানাতে চাই। তাঁদের অবদানকে সম্মান জানাতেই ওই দিন পূর্ণ দিবস রাজ্য সরকারি দফতর ছুটি থাকবে।’ তা ছাড়া কেন্দ্রীয় সরকারের উদ্দেশ্যে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা কেন্দ্রকেও বলব ওই দিনটিকে জাতীয় ছুটি হিসেবে ঘোষণা করা হোক।

সমস্ত রাজ্যগুলিকেও আমি অনুরোধ করব ফ্রন্টলাইন ওয়ার্কারদের সম্মান জানাতে ওই দিন সব রাজ্য ছুটি ঘোষণা করুক।’ এদিন সাংবাদিক সম্মেলনের শুরুতেই মুখ্যমন্ত্রী সেইসব মানুষের কথাই প্রথমে বলেন, যাঁরা এই কঠিন পরিস্থিতিতে অক্লান্ত পরিষেবা দিয়ে চলেছেন। তাঁর কথায়, ‘যাঁরা সরাসরি চিকিৎসা পরিষেবা কিংবা অন্যান্য স্বাস্থ্য পরিষেবায় যুক্ত রয়েছেন, তাঁদেরও তো মরাল সাপোর্ট দিচ্ছে তাঁদের পরিবার। আড়ালে থেকে এই সমর্থনটা জুগিয়ে যাচ্ছেন বলেই ফ্রন্টলাইন ওয়ারিয়ররা এত ভালভাবে কাজ করতে পারছেন। এঁদের সকলকে আমাদের তরফে শ্রদ্ধা, সম্মান। সকলের জন্য আমরা স্থির করেছি, ১ তারিখ রাজ্যে ছুটি। এই ছুটির মাধ্যমে তাঁদের এতদিনের কাজকে সম্মান জানাতে চাইছি।’ এদিনের সাংবাদিক বৈঠকে আরও কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। করোনা আবহে অন্যান্য চিকিৎসা পরিষেবা যাতে ব্যাহত না হয়, তার জন্য এবার থেকে টেলিমেডিসিন পরিষেবা চালু করা হচ্ছে। ১ জুলাই, ডক্টরস ডে থেকেই তার সূচনা হবে। যাঁরা হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসা করানোর জন্য যেতে পারবেন না, তাঁরা নির্দিষ্ট নম্বরে ফোন করেই চিকিৎসকদের পরামর্শ নিতে পারবেন। রাজ্যের মোট ৬০ জন চিকিৎসককে ‘কোভিড ওয়ারিয়র্স ক্লাব’ তৈরির ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর আরও ঘোষণা, এবার থেকে করোনাজয়ীরা হাসপাতালে গিয়ে নিজেদের অভিজ্ঞতার কথা বলে অন্য রোগীদের মনোবল বাড়াবেন। তাহলেই করোনাকে জয় করা সহজ হবে বলে বিশ্বাস তাঁর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *