You cannot copy content of this page

ভোট নেই তবুও সব বিধায়কদের জনসংযোগ বাড়াতে নেত্রীর নির্দেশে “দিদিকে বলো” কর্মসূচি ব্যস্ত মন্ত্রী অরূপ সহ টালিগঞ্জের পুরপ্রতিনিধিরা

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, উত্তর ২৪ পরগণা, ৩১শে জুলাই ২০১৯ : দলের কিছু কর্মী ও নেতাদের অপকর্ম ও দুর্ব্যবহারের কারণে মানুষ তৃণমূলের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিতে চাইছেন তা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি সদ্য হয়ে যাওয়া লোকসভা নির্বাচনে বেশ ভালোই বুঝে গেছেন। আর তাই সেই পরিস্থিতিকে ফিরিয়ে আনতে তিনি “দিদিকে বলো” চালু করেছেন। এই “দিদিকে বলো” মারফৎ সাধারণ মানুষ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর কাছে সরাসরি অভিযোগ জানাতে পারবেন, আর এর মাধ্যমেই মানুষের সাথে জনসংযোগ করতে পারবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। তাই তিনি রাজ্যের সকল বিধায়কদের নির্দেশ দিয়েছেন মানুষের সাথে জনসংযোগ বাড়াতে সব বিধানসভায় “দিদিকে বলো” প্রচার করতে হবে ৩১শে জুলাই ও ১লা আগস্ট। এরপর সব বিধানসভায় বিধায়কদের প্রতিটা এলাকায় গিয়ে মানুষের সাথে কথা বলতে হবে, অভিযোগ শুনতে হবে। অভিযোগ শুনে তা নথিভুক্ত করতে হবে যা নিয়ে পরবর্তীতে আলোচনা করা হবে। এমনকি কর্মীদের কথাও শুনতে হবে, সংগঠনকে শক্তিশালী করতে সেই অভিযোগের ভিত্তিতে সমাধান সূত্র করতে হবে। সাম্প্রতিক টালিগঞ্জ বিধানসভার বিধায়ক অরূপ বিশ্বাস সভা করে এলাকার সকল নাগরিকদের “দিদিকে বলো” নিয়মাবলী ও নম্বর সম্পর্কে সচেতন করেন। এই প্রচারের সময় বিধায়ক ও মন্ত্রী অরূপ বিস্বাসের সাথে ছিলেন কলকাতা কর্পোরেশনের ১০ নম্বর বোরো চেয়ারম্যান তপন দাশগুপ্ত, ১১৩ নং ওয়ার্ডের পুরপিতা গোপাল রায়, ১১২ নং ওয়ার্ডের পুরমাতা অনিতা কর মজুমদার, ১০০ নং ওয়ার্ডের পুরমাতা সুস্মিতা দাম, ৯৪ নং ওয়ার্ডের পুরমাতা অর্চনা সেনগুপ্ত, ৯৭ অং ওয়ার্ডের পুরমাতা মিতালি ব্যানার্জি সহ অনেকে। মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস বলেন, “দিদিকে বলো” কর্মসূচি মানুষকে বিভিন্ন বিষয়ে ও সমস্যায় অনেক আশ্বস্ত করবে।রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি ইতিমধ্যে জানিয়ে দিয়েছেন ৯১৩৭০৯১৩৭০ নম্বরে যে কোন নাগরিক ফোন করতে পারবেন অথবা ওয়াবসাইটে নিজের অভিযোগ জানাতে পারবেন, লগ ইন করতে হবে www.didikebolo.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *