You cannot copy content of this page

রেড রোডে ২০১৯ সালের বর্ণাঢ্যময় কার্নিভ্যাল সোনারপুরের গ্রীনপার্ক ও নবদূর্গা

অম্বর ভট্টাচার্য, এবিপিতকমা, কলকাতা, ১২ই অক্টোবর ২০১৯ : ২০১৯ সালের কার্নিভ্যালে মোট ৮০টা প্রতিমা আমন্ত্রণ পেলেও শেষ পর্যন্ত উপস্থিত হয়েছে ৭৩টা প্রতিমা। কলকাতার প্রায় সব বড় পুজো ও জনপ্রিয় প্রতিমা এবারের কার্নিভ্যালে উপস্থিত ছিল। প্রতিমার সাথে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়, অরূপ বিশ্বাস, শশী পাঁজা, চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, পার্থ চ্যাটার্জি, ফিরাদ হাকিম, সুজিত বসু, নির্মল মাঝি, ইন্দ্রনীল সেন, বিমান ব্যানার্জি, তাপস রায়, ফিরদৌসী বেগম, সাংসদ শুভাশিস চক্রবর্তী, নুসরত জাহান, সৌগত রায়, মালা রায়, সুদীপ ব্যানার্জি, সুব্রত বক্সি, সহ অনেকে। উপস্থিত ছিলেন অতীন ঘোষ, মদন মিত্র, অসীম বসু, স্বরূপ বিশ্বাস, বৈশ্বানর চট্টোপাধ্যায়, নজরুল আলি মন্ডল, বিশ্বজিত দাস (নন্দ), অভ্র মুখার্জি, স্মিতা বকসী সহ অনেকে। একইসাথে উপস্থিত ছিলেন টলিউডের মাধবী মুখার্জি, শ্রাবন্তী ও তাঁর স্বামী, প্রিয়াঙ্কা সরকার, ইন্দ্রানী হালদার, সোহম চক্রবর্তী, সম্রাট মুখার্জি, ইন্দ্রানী দত্ত, রাহুল রায়, বিক্রম চ্যাটার্জি, অভিজিৎ, অদিতি মুন্সী, সৈকত মিত্র, জুন মালিয়া, অরিন্দাম সীল সহ অনেকে। দেশ ও বিদেশের বহু অতিথি উপস্থিত ছিলেন তবে সব থেকে আকর্শনীয় ছিল রাজ্যপালের জগদীপ ধনকর ও তাঁর স্ত্রীর উপস্থিতি এবং

কলকাতা তথা সারা দেশের বিভিন্ন কনসাল জেনারেল এবং বৌদ্ধ সন্নাসী ডঃ অরুণজ্যোতি ভিক্কু।কার্নিভ্যালের শুরুতে ছিল কলকাতা পুলিশের টর্নেডো বাহিনীর মোটর সাইকেলে দুঃসাহসিক প্রদর্শনে ছিল সার্জেন্ট প্রশান্ত হেত, প্রদীপ বর্মন, আনিসুর রহমান, সদ্দাম মন্ডল, কে আর তিওয়ারি, বি ঘোষ, এ দাস, আনিসুর শেখ, বিপ্লব বর্মন, উৎপল বর্মন, শঙ্কর মর্মু, চৈতন্য রাজন, অহেদুল ইসলাম, গুলসেন কুমার সরেন, প্রনয় বর্মন, অপূর্ব মাল্য, রামচন্দ্র মুর্মু, এস দাস, এ কুমার, বি বর্মন, রাজকুমার বর্মন, অভিজিৎ সাহা এবং মা দূর্গা হিসেবে ছিলেন প্রিয়াঙ্কা ঘোষ, পিঙ্কি মন্ডল সহ অনেকে।

ছিল লোকনৃত্য এবং তারপরই সকলের সামনে প্রদর্শিত হয় বিশ্ব বাংলার সেরার সেরা ৪৮ বর্ষের শ্রীভুমি স্পোর্টিং, মা দূর্গার নৃত্য প্রদর্শন করেন নুসরত।এরপর একে একে আসে একডালিয়া এভারগ্রীন, কাশি বোস লেন, দক্ষিণ কলকাতা সর্বজনীন, আদি বালিগঞ্জ (৭০ বর্ষ, বিশ্ব বাংলা সেরার সেরা সাবেকী পুজো), ফতেপুর দুর্গোৎসব, বরানগরের ন’পাড়া দাদা ভাই সংঘ (হুইল চেয়ারে মায়েরা), জগৎ মুখার্জি পার্ক (৮৩ বর্ষ), বালিগঞ্জ কালচারাল (৬৯ বর্ষ), সিমলা ব্যায়াম সমিতি (৯৪ বর্ষ), তরুণ দল, বাঘাযতীন তরুণ সংঘে নৃত্য পরিবেশন করে পায়ল সরকার, ভারত চক্র ক্লাব, বডি গার্ড লাইন (গোর্খা বাহিনী কুক্রি নিয়ে ড্রিল প্রাদর্শন করে), মহিলা পরিচালিত গড়িয়াহাট হিন্দুস্থান ক্লাব, আলিপুর ৭৮ পল্লী, কোলাহল গোষ্ঠী (৪৯ বর্ষ), নবদূর্গা (৭৯ বর্ষে মিতালি সংঘ), মমতা ব্যানার্জির কবিতা অবলম্বনে “আমি” নিয়ে ভবানীপুর স্বাধীন সংঘ (৭১ বর্ষ),

বেহালা ক্লাব (৭৫ বর্ষ), বিশ্ব বাংলার সেরা মন্ডপ তেলেঙ্গাবাগান (৫৪ বর্ষ), বাটাম ক্লাব পরিচালিত পেয়ারাবাগান, কোয়াম্বাটরের শিব মুর্তি স্থান পেয়েছে গিনিজ বুকে আর তাই নিয়ে রূদ্রানী মাতৃ মুর্তিতে সোনারপুরের নরেন্দ্রপুর গ্রীন পার্ক বিশ্ব বাংলায় দঃ ২৪ পরগণায় সেরা প্রতিমা, চোরবাগান, ফরওয়ার্ড ক্লাব, হাতিবাগান সার্বজনীন (৮৫ বর্ষ), নলিন সরকার স্ট্রীট, আহিরীটোলা, বারুইপুর ইউথ ক্লাব, বরানগর নেতাজী কলোনি লো ল্যান্ড, ২১ পল্লী (৭৩ বর্ষ), হিন্দুস্থান পার্ক, ভবানীপুর ৭৫ পল্লী, মানস বাগ (বেলঘরিয়া), অবসর সর্বজনীন (৬৯ বর্ষ), সুরুচি সংঘ (৬৬ বর্ষ), সমাজ সেবী সংঘ, ঠাকুরপুকুর স্টেট ব্যাঙ্ক,বড়িশা ক্লাব, কুমারটুলি সর্বজনীন, বকুল বাগান, রাজডাঙ্গা নব উদয় সংঘ, কালীঘাট মিলন সংঘ, ৭৪ পল্লী, বাঘাযতীন বি অ্যান্ড সি, চক্রবেড়িয়া সর্বজনীন, যুবমৈত্রী, হরিদেবপুর ৪১ পল্লী, কলেজ স্কোয়ার, চালতাবাগান, বাবুবাগান, গলফ গ্রীন

শারদোৎসব, বেহালা নতুন দল, খিদিরপুর ২৫ পল্লী (৭৫ বর্ষ), পূর্বাচল শক্তি সংঘ, বেলঘরিয়া বানী মন্দির ক্লাব, হরিদেবপুর ইউথ স্পোর্টিং ক্লাব, ৬৬ পল্লী, আলিপুর সর্বজনীন, নাকতলা উদায়ন সংঘ-এর পক্ষে নৃত্য পরিবেশন করেন জয়া সীল ও রিচা শর্মা, যোদপুর পার্ক, বাদামতলা আষাঢ় সংঘ,

সেলিমপুর পল্লী, শিবপুর মন্দিরতলা, ত্রিধারা (৭৩ বর্ষ) নৃত্য পরিবেশন করে দেবলীনা কুমার, অজেয় সংহতি, বোস পুকুর শীতলা মন্দির, সন্তোষপুর লেক পল্লী, যোদপুর পার্ক ৯৫ পল্লী, চেতলা অগ্রনী, সন্তোষপুর এভিনিউ সাউথ দিয়ে শেষ হয় এবারের কার্নিভ্যাল। ছবি : বিশ্বজিত সাহা , রাজীব মুখার্জি ও সৌমিত্র কুন্ডু।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *